রাজিয়া খান



রাজিয়া খান (১৯৩৬-২০১১)

বাংলাদেশের উপন্যাসে নারী ভাবমূর্তি সৃষ্টিতে বিশেষ অবদান রাখেন রাজিয়া খান। পঞ্চাশের দশকে সাহিত্য ও সংস্কৃতির অনুরাগী ও প্রগতিবাদী লেখিকা হিসেবে প্রতিভার স্বাক্ষর রেখেছেন।

 

সাহিত্যিক উপাদান

সাহিত্যিক তথ্য

জন্ম

রাজিয়া খান ১৬ ফেব্রুয়ারি, ১৯৩৬ সালে ফরিদপুরে জন্মগ্রহণ করেন।

প্রকৃত নাম

প্রকৃত নাম রাজিয়া আমিন খান

ব্যঙ্গ কলাম

তিনি অবজারভার পত্রিকায় 'কালচার কেটল' শিরোনামে নিয়মিত ব্যঙ্গ কলাম লিখতেন।

পুরস্কার

তিনি বাংলা একাডেমি পুরস্কার (১৯৭৫), একুশে পদক (১৯৯৭) পান।

উপন্যাস

তাঁর রচিত উপন্যাসসমূহ:

‘বটতলার উপন্যাস' (১৯৫৮): এটি তাঁর প্রথম প্রকাশিত সার্থক ট্রাজিক উপন্যাস, যা তিনি মাত্র ১৮ বছর বয়সে লিখেন। মঈন নামক কেন্দ্রীয় চরিত্রের আত্মকথনের মধ্য দিয়ে ১৯৪৭ সালের দেশবিভাগের পরবর্তী সময়ের এ উপমহাদেশের সমাজ, সময় ও রাষ্ট্রের জটিল ও দ্বন্দ্বময় ঘাত-সংঘাত সার্থকভাবে ফুটে উঠেছে।

‘অনুকল্প' (১৯৫৯): এটি জটিল মনস্তাত্ত্বিক সার্থক উপন্যাস। দুজন যুবক-যুবতী, যারা বাল্যে একই মহিলার স্তন্যপান করেছিল, তাদের মধ্যকার প্রেমঘটিত মনস্তাত্ত্বিক পটভূমিতে এ উপন্যাস রচিত

দ্রৌপদী' (১৯৯৩): এটি মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক উপন্যাস।

প্রতিচিত্র' (১৯৭৬),

চিত্রকাব্য' (১৯৮০),

হে মহাজীবন’ (১৯৮৩),

পাদবিক’ (১৯৯৮),

উপসংহার’।

মৃত্যু

তিনি ২৮ ডিসেম্বর, ২০১১ সালে ঢাকায় মারা যান ।

 

এই পোস্টগুলি আপনার ভাল লাগতে পারে:

কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন